দুপুর ২:৪৮ | মঙ্গলবার | ২৮শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ময়মনসিংহের কালো অধ্যায়-সিনেমা হলে বোমা হামলা- নির্যাতিত মতিউর রহমান

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

২০০২ সালের ৭ ডিসেম্বর ময়মনসিংহের ৪ সিনেমা হলে সিরিজ বোমা হামলার ঘটনা
ঘটায় বিএনপি জামায়তের সন্ত্রাসীরা। এতে ১৮ জনের মৃত্যু হয়; আহত হন আরও দুই শতাধিক।

 

আজকের এই দিনে ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল তৎকালীন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মতিউর রহমান (বর্তমান ধর্মমন্ত্রী) ও তার ছেলে মোহিত উর রহমান শান্ত, সাংগঠনিক সম্পাদক সাবের হোসেন চৌধুরীসহ ৩১ জনকে।

 

সে সময় এ ঘটনায় সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়। তৎকালীন সরকারের নির্দেশে নির্মম নির্যাতন চালানো হয় অধ্যক্ষ মতিউর রহমানের উপর।

 

২০০৬ সালের ৬ জুন জামালপুরের প্রথম শ্রেণির ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ‘জেএমবি নেতা ও শূরা সদস্য’ সালেহীন ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে চার সিনেমা হলে বোমা হামলায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন।

 

মামলার আসামিরা হয় – ‘জেএমবি সদস্য’ আনোয়ার হোসেন ওরফে ভাগ্নে শহীদ, সালাহউদ্দিন আহম্মেদ ওরফে সালেহীন ও জাহিদুল ইসলাম সুমন ওরফে বোমা মিজান।

 

আর পুলিশ প্রথমে আদালতে অভিযোগপত্র দিয়েছিল ৪৩ জনের বিরুদ্ধে। পরে সালেহীনের দেওয়া স্বীকারোক্তি মোতাবেক অধ্যক্ষ মতিউর রহমান, সাবের হোসেনসহ ৪০ জনকে মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।”

তবে১৬ বছরেও বিচার হয়নি প্রকৃত অপরাধীদের।

Print Friendly, PDF & Email

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» নাসিরাবাদ কলেজ গর্ভনিং বডির কমিটি বহাল রেখেছে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ

» দ্বিতীয় দফায় এমপি মোহিত উর রহমানের ফ্রি চক্ষু সেবা

» প্রয়াত মতিউর রহমানের স্নেহধন্য আবু সাঈদ জনতার ভালোবাসা

» অস্ত্র মামলায় কাউন্সিলর নোমানের ১০ বছর কারাদণ্ড

» আমি বাংলাদেশের সবচাইতে অজনপ্রিয় সাংসদ হবো- মোহিত উর রহমান শান্ত

» ময়মনসিংহ ডিবির অভিযানে ৪ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

» তাপদাহ প্রশমনে ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগের উদ্যোগে পানি-জুস-সেলাইন বিতরণ

» এমপি মোহিত উর রহমানের সহায়তায় ১১০ জনের চোখের ছানি অপারেশন সম্পন্ন

» উপজেলা চেয়ারম্যান পদে আশরাফ-সাঈদ প্রতিদ্বন্দ্বিতার আভাস, ১৪ জন বৈধ ঘোষিত

» আগামীকাল ময়মনসিংহ মেতে উঠবে স্বাধীনতা কনসার্টে

» ভাষা শহীদদের প্রতি সংসদ সদস্য মোহিত উর রহমান শান্তর শ্রদ্ধাঞ্জলী

» ১৪৭ বেকার তরুণ তরুণীকে চাকুরির প্রস্তুতি কর্মশালা করালেন এমপি মোহিত উর রহমান শান্ত

» হালুয়াঘাট-ধোবাউড়ায় ৯ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ বৃদ্ধি ; কৃষি সেচে গুরুত্ব এমপির

» ময়মনসিংহ সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আলোচনায় আবু সাঈদ

» সংবর্ধনা বাতিল করে শীতার্তদের মাঝে এমপি মোহিত উর রহমানের কম্বল বিতরণ

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

ময়মনসিংহের কালো অধ্যায়-সিনেমা হলে বোমা হামলা- নির্যাতিত মতিউর রহমান

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

২০০২ সালের ৭ ডিসেম্বর ময়মনসিংহের ৪ সিনেমা হলে সিরিজ বোমা হামলার ঘটনা
ঘটায় বিএনপি জামায়তের সন্ত্রাসীরা। এতে ১৮ জনের মৃত্যু হয়; আহত হন আরও দুই শতাধিক।

 

আজকের এই দিনে ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল তৎকালীন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মতিউর রহমান (বর্তমান ধর্মমন্ত্রী) ও তার ছেলে মোহিত উর রহমান শান্ত, সাংগঠনিক সম্পাদক সাবের হোসেন চৌধুরীসহ ৩১ জনকে।

 

সে সময় এ ঘটনায় সারাদেশে রেড অ্যালার্ট জারি করা হয়। তৎকালীন সরকারের নির্দেশে নির্মম নির্যাতন চালানো হয় অধ্যক্ষ মতিউর রহমানের উপর।

 

২০০৬ সালের ৬ জুন জামালপুরের প্রথম শ্রেণির ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ‘জেএমবি নেতা ও শূরা সদস্য’ সালেহীন ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে চার সিনেমা হলে বোমা হামলায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন।

 

মামলার আসামিরা হয় – ‘জেএমবি সদস্য’ আনোয়ার হোসেন ওরফে ভাগ্নে শহীদ, সালাহউদ্দিন আহম্মেদ ওরফে সালেহীন ও জাহিদুল ইসলাম সুমন ওরফে বোমা মিজান।

 

আর পুলিশ প্রথমে আদালতে অভিযোগপত্র দিয়েছিল ৪৩ জনের বিরুদ্ধে। পরে সালেহীনের দেওয়া স্বীকারোক্তি মোতাবেক অধ্যক্ষ মতিউর রহমান, সাবের হোসেনসহ ৪০ জনকে মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।”

তবে১৬ বছরেও বিচার হয়নি প্রকৃত অপরাধীদের।

Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com