রাত ৮:৫০ | মঙ্গলবার | ৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

শিক্ষকের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগে মমেক ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদকসহ ১০ শিক্ষার্থী বহিস্কার

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

শিক্ষকের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের আনা যৌন হয়রানীর অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায়
মমেক ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসানসহ ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে বহিস্কার করেছে একাডেমিক কাউন্সিল।

 

 

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের সার্জারী বিভাগের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে ৫৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানীর আনা অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় শাখা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল হাসানসহ ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে বহিস্কার করা হয়েছে।

 

 

শনিবার তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনের পর দিনভর আলোচনা শেষে বিকালে এমন সিদ্ধান্ত হয় একাডেমিক কাউন্সিলে। পরে সাংবাদিকদের কাছে লিখিত ভাবে জানান কলেজ কর্তৃপক্ষ।

 

 

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা.চিত্তরঞ্জন দেবনাথ বলেন, গত ২ ফেব্রুয়ারী সার্জারী বিষয়ের মৌখিক ও ব্যবহারিক চলাকালীন সময়ে সার্জারী বিভাগের অধ্যাপক ডা.আবুল কালাম আজাদ উদ্দেশ্যেপ্রনোদিত ভাবে ডিএসবির একজন সদস্যের সামনে পরীক্ষা সম্পন্ন করেন। এছাড়াও বিভিন্ন সময় তিনি সরকারী বিরোধী কর্মকান্ডে লিপ্ত থাকেন। নিজের ইচ্ছা অনুযায়ী সরকারী দলীয় ছাত্রদের ফেল করান। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের ৫৩ ব্যাচের ছাত্র এবং কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল হাসান আমার বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। যা তদন্ত কমিটি সত্যতা না পাওয়ায় তাকে তিন বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় সে ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

অপরদিকে গত (২৩ ফেব্রুয়ারী) ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল গেটের সামনে ৫৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানীর অভিযোগ এনে সার্জারী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভের সত্যতা না পাওয়ায় এবং ডা.কালামের বিরুদ্ধে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দেওয়ায় শিক্ষার্থী ফায়াদুর রহমান আকাশ, তামান্না তাসকিনকে দুই বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় তারা ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

মানববন্ধনে স্বেচ্ছায় অংশ গ্রহণের জন্য সুনীতি কুমার দাশ, সানবীম খান, মহিদুল হক, তানভীন হাসান, কাশফী তাবরীজ, বাপ্পু কর্মকার এবং সাখাওয়াত হোসেন সিফাতকে এক বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় তারা ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

এছাড়াও অনিচ্ছাকৃত ভাবে মিছিলে অংশ গ্রহণ করায় আটজনকে মুচলেকা দিয়ে একাডেমিক কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

 

 

সার্জারী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানীর অভিযোগ এনে তাঁর অপসারন দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের বিষয়ে কলেজ কর্তৃপক্ষ গত ২৪ ফেব্রুয়ারী গাইনী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান তাইয়্যুবা তানজিনকে প্রধান করে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেন।

Print Friendly, PDF & Email

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» আগামীকাল ময়মনসিংহ মেতে উঠবে স্বাধীনতা কনসার্টে

» ভাষা শহীদদের প্রতি সংসদ সদস্য মোহিত উর রহমান শান্তর শ্রদ্ধাঞ্জলী

» ১৪৭ বেকার তরুণ তরুণীকে চাকুরির প্রস্তুতি কর্মশালা করালেন এমপি মোহিত উর রহমান শান্ত

» হালুয়াঘাট-ধোবাউড়ায় ৯ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ সরবরাহ বৃদ্ধি ; কৃষি সেচে গুরুত্ব এমপির

» ময়মনসিংহ সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আলোচনায় আবু সাঈদ

» সংবর্ধনা বাতিল করে শীতার্তদের মাঝে এমপি মোহিত উর রহমানের কম্বল বিতরণ

» ব্রহ্মপুত্রে নৌকায় চড়ে অনুষ্ঠানিক প্রচারণা শুরু করলেন মোহিত উর রহমান শান্ত

» ময়মনসিংহে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে উল্লাসভরে ফুলেল শুভেচ্ছায় সমাবেশ

» লেঃ কর্ণেল (অবঃ)নজরুল ইসলামের হস্তক্ষেপে দীর্ঘদিনের জমি সংক্রান্ত বিরোধের অবসান

» ময়মনসিংহ-৪ আসনে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন মোহিত উর রহমান শান্ত

» আবারও জাপাকে দিলে জনগনের আস্থা হারাবে আওয়ামী লীগ

» ময়মনসিংহ-৪ আসনে মনোনয়ন কিনেছেন মহানগর সাধারণ সম্পাদক মোহিত উর রহমান শান্ত

» জনসভায় জনসমুদ্র ; সদরের প্রত্যাশা মোহিত উর রহমান শান্ত

» সংবিধান মেনে নির্বাচনে আসেন, আমরাও আসবো-বিএনপিকে মোহিত উর রহমান শান্ত

» প্রতীকী অটোরিকশা চালিয়ে অবরোধের বিরুদ্ধে মোহিত উর রহমান শান্তর প্রতিবাদ

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

শিক্ষকের বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগে মমেক ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদকসহ ১০ শিক্ষার্থী বহিস্কার

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

শিক্ষকের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের আনা যৌন হয়রানীর অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায়
মমেক ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক হাসানসহ ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে বহিস্কার করেছে একাডেমিক কাউন্সিল।

 

 

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের সার্জারী বিভাগের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে ৫৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানীর আনা অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় শাখা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল হাসানসহ ১০ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে বহিস্কার করা হয়েছে।

 

 

শনিবার তদন্ত কমিটির প্রতিবেদনের পর দিনভর আলোচনা শেষে বিকালে এমন সিদ্ধান্ত হয় একাডেমিক কাউন্সিলে। পরে সাংবাদিকদের কাছে লিখিত ভাবে জানান কলেজ কর্তৃপক্ষ।

 

 

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা.চিত্তরঞ্জন দেবনাথ বলেন, গত ২ ফেব্রুয়ারী সার্জারী বিষয়ের মৌখিক ও ব্যবহারিক চলাকালীন সময়ে সার্জারী বিভাগের অধ্যাপক ডা.আবুল কালাম আজাদ উদ্দেশ্যেপ্রনোদিত ভাবে ডিএসবির একজন সদস্যের সামনে পরীক্ষা সম্পন্ন করেন। এছাড়াও বিভিন্ন সময় তিনি সরকারী বিরোধী কর্মকান্ডে লিপ্ত থাকেন। নিজের ইচ্ছা অনুযায়ী সরকারী দলীয় ছাত্রদের ফেল করান। ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের ৫৩ ব্যাচের ছাত্র এবং কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল হাসান আমার বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। যা তদন্ত কমিটি সত্যতা না পাওয়ায় তাকে তিন বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় সে ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

অপরদিকে গত (২৩ ফেব্রুয়ারী) ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল গেটের সামনে ৫৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানীর অভিযোগ এনে সার্জারী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভের সত্যতা না পাওয়ায় এবং ডা.কালামের বিরুদ্ধে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দেওয়ায় শিক্ষার্থী ফায়াদুর রহমান আকাশ, তামান্না তাসকিনকে দুই বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় তারা ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

মানববন্ধনে স্বেচ্ছায় অংশ গ্রহণের জন্য সুনীতি কুমার দাশ, সানবীম খান, মহিদুল হক, তানভীন হাসান, কাশফী তাবরীজ, বাপ্পু কর্মকার এবং সাখাওয়াত হোসেন সিফাতকে এক বছরের জন্য একাডেমিক কার্যক্রম থেকে বহিস্কার করা হয়। এসময় তারা ছাত্রাবাসেও থাকতে পারবে না।

 

 

এছাড়াও অনিচ্ছাকৃত ভাবে মিছিলে অংশ গ্রহণ করায় আটজনকে মুচলেকা দিয়ে একাডেমিক কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়ার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

 

 

সার্জারী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানীর অভিযোগ এনে তাঁর অপসারন দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের বিষয়ে কলেজ কর্তৃপক্ষ গত ২৪ ফেব্রুয়ারী গাইনী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান তাইয়্যুবা তানজিনকে প্রধান করে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেন।

Print Friendly, PDF & Email

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com