সকাল ১০:১৩ | মঙ্গলবার | ২৬শে মে, ২০২০ ইং | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নুরে আলম দক্ষতার মানদন্ডে অনেক দক্ষ- পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম

বিল্লাল হোসেন প্রান্ত ॥
‘যেতে নাহি দিব হায় তবু যেতে দিতে হয়, তবু চলে যায়’ কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের অমর কবিতার চরণ দিয়েই অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নুরে আলমের বিদায় সংবর্ধনায় তার শূন্যতার অনুভবনীয় আবেগ উদ্দিপ্ত হয়ে বক্তব্য রাখছিলেন পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম।
বদলি জনিত কারনে ময়মনসিংহের পুলিশ প্রশাসনের সুদক্ষ ও সফল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার( প্রশাসন) নুরে আলম নারায়নগঞ্জে চলে গেলেন।
বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক, প্রশাসনিকসহ সর্বস্থরের পৃথক পৃথক বিদায় সংবর্ধনা শেষে সোমবার পুলিশ লাইন্সে মাসিক কল্যান সভায় ফুল, ভালোবাসা আর আবেগআপ্লুতভরে বিদায় সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে তাকে।
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে নুরে আলমের বিগত কর্মস্পৃহার প্রশংসা করে পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, ব্যবস্থাপনার কেন্দ্র বিন্দুতে প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ন দায়িত্বটি পালন করেছে নুরে আলম।


তিনি বলেন, সে দক্ষতার মানদন্ডে অনেক দক্ষ। এবং সে অর্জনও করেছে অনেক কিছু। তিনি বলেন, কাছের মানুষগুলো কাছে থাকতে বুঝা যায় না। না থাকলে তার শূন্যতা অনুভব হয়। যেমন দাত থাকলে বুঝা যায় না। না থাকলে অনুভব হয়।
তিনি বলেন, আজ থেকে আমার কাছে একটি শূণ্যতা কাজ করতে শুরু করেছে। একজন জুনিয়র এর সবচাইতে বড় আর্জন সিনিয়রকে তার উপর নির্ভরশীল করে ফেলা। সেটি নুরে আলম করতে পেরেছে। ‘আমি তার শূন্যতা অনুভব করতে শুরু করেছি’।
সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, এ দেশটা স্বাধীন করতে যারা রক্ত দিয়ে গেছে তারা আর ফিরে আসবে না। আমরা যেন তাদের আত্মত্যাগকে দেশের জন্য কাজ করে কিছুটা হলেও ঋণ সুধ করতে পারি। সে আদর্শ নিয়ে সামনে এগিয়ে যাও কামনা করি।
‘চলে যাওয়া মানে শুধু প্রস্থান নয়’ কবিতার চরন দিয়ে পুলিশ সুপার যখন তার বক্তব্য শেষ করলেন তখন দরবার হলে পিন পতন নিরবতা। আর পাশে বসে আদর্শের মানুষটির আবেগময় কবিতায় বিদায়ী অভিভাষণ যেন হৃদয়কে নিংরে দিচ্ছিল নুরে আলমের।


সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিদায়ী অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নুরে আলম তার অনুভতি ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেন, আমি পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম এর সাথে কাজ করতে পেরে নিজেকে সার্থক মনে করি। তিনি বলেন, স্যারের পূর্ন আলো পেয়ে তা কতটুকু প্রস্ফুটিত করতে পেরেছি জানি না। চেষ্টা করেছি। শিখেছি অনেক কিছু। সে আদর্শ ধারন করে পথ চলতে চাই।
অনুষ্ঠানে জেলা পুলিশের সর্বস্থরের কর্মকর্তা,কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» বেসরকারি স্বাস্থ্যকর্মীদের ঈদ উপহার নগদ অর্থ দিলেন করোনা যোদ্ধা ডা: আশিক

» আফাজ উদ্দিন সরকার ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ

» এসএসসি ১৯৯৯-২০০০ ব্যাচের উদ্যােগে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ

» মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা শাহজাদার ইফতার ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

» ছিন্নমূলদের মাঝে খাবার বিতরণ করলো জেলা ছাত্রলীগ নেতা নাহিদুল

» ঈদের পূর্বে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পাচ্ছে না হালুয়াঘাটের ধুরাইলবাসী! ভিডিও

» বাকৃবি ২০১১-১৩ ছাত্রলীগের উদ্যোগে দরিদ্রদের মাঝে ঈদ সামগ্রী প্রদান

» ঈশ্বরগঞ্জে যুবলীগ নেতা মাহবুবের ঈদ উপহার পেলো ৪শ পরিবার

» দ্বিতীয় দিনে ৩শ পরিবারকে ঈদ উপহার দিলেন যুবলীগ নেতা রুমেল

» আগামীকাল থেকে নিত্যপণ্য ছাড়া সকল দোকানপাট বন্ধ থাকবে

» আনন্দমোহন কলেজ মাঠ থেকেই ছাত্রলীগ সভাপতি রকিবের ত্রাণ বিতরণ

» ঈদ উপহার নিয়ে এক হাজার পরিবারের পাশে যুবলীগ নেতা আসাদুজ্জামান রুমেল

» ঈদে কেনাকাটার টাকায় খাদ্য কিনে প্রতিবন্ধীদের দিলেন ময়মনসিংহের এসপি

» বিশেষ ওএমএস খাদ্য তালিকায় কারাবন্দীর নাম; সমালোচনার ঝড়

» ময়মনসিংহে লুডু খেলার জেরে ছুরিকাঘাতে তরুণ খুন

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

নুরে আলম দক্ষতার মানদন্ডে অনেক দক্ষ- পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম

বিল্লাল হোসেন প্রান্ত ॥
‘যেতে নাহি দিব হায় তবু যেতে দিতে হয়, তবু চলে যায়’ কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের অমর কবিতার চরণ দিয়েই অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নুরে আলমের বিদায় সংবর্ধনায় তার শূন্যতার অনুভবনীয় আবেগ উদ্দিপ্ত হয়ে বক্তব্য রাখছিলেন পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম।
বদলি জনিত কারনে ময়মনসিংহের পুলিশ প্রশাসনের সুদক্ষ ও সফল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার( প্রশাসন) নুরে আলম নারায়নগঞ্জে চলে গেলেন।
বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক, প্রশাসনিকসহ সর্বস্থরের পৃথক পৃথক বিদায় সংবর্ধনা শেষে সোমবার পুলিশ লাইন্সে মাসিক কল্যান সভায় ফুল, ভালোবাসা আর আবেগআপ্লুতভরে বিদায় সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে তাকে।
সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে নুরে আলমের বিগত কর্মস্পৃহার প্রশংসা করে পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, ব্যবস্থাপনার কেন্দ্র বিন্দুতে প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ন দায়িত্বটি পালন করেছে নুরে আলম।


তিনি বলেন, সে দক্ষতার মানদন্ডে অনেক দক্ষ। এবং সে অর্জনও করেছে অনেক কিছু। তিনি বলেন, কাছের মানুষগুলো কাছে থাকতে বুঝা যায় না। না থাকলে তার শূন্যতা অনুভব হয়। যেমন দাত থাকলে বুঝা যায় না। না থাকলে অনুভব হয়।
তিনি বলেন, আজ থেকে আমার কাছে একটি শূণ্যতা কাজ করতে শুরু করেছে। একজন জুনিয়র এর সবচাইতে বড় আর্জন সিনিয়রকে তার উপর নির্ভরশীল করে ফেলা। সেটি নুরে আলম করতে পেরেছে। ‘আমি তার শূন্যতা অনুভব করতে শুরু করেছি’।
সৈয়দ নুরুল ইসলাম বলেন, এ দেশটা স্বাধীন করতে যারা রক্ত দিয়ে গেছে তারা আর ফিরে আসবে না। আমরা যেন তাদের আত্মত্যাগকে দেশের জন্য কাজ করে কিছুটা হলেও ঋণ সুধ করতে পারি। সে আদর্শ নিয়ে সামনে এগিয়ে যাও কামনা করি।
‘চলে যাওয়া মানে শুধু প্রস্থান নয়’ কবিতার চরন দিয়ে পুলিশ সুপার যখন তার বক্তব্য শেষ করলেন তখন দরবার হলে পিন পতন নিরবতা। আর পাশে বসে আদর্শের মানুষটির আবেগময় কবিতায় বিদায়ী অভিভাষণ যেন হৃদয়কে নিংরে দিচ্ছিল নুরে আলমের।


সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বিদায়ী অতিরিক্ত পুলিশ সুপার নুরে আলম তার অনুভতি ব্যক্ত করতে গিয়ে বলেন, আমি পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম এর সাথে কাজ করতে পেরে নিজেকে সার্থক মনে করি। তিনি বলেন, স্যারের পূর্ন আলো পেয়ে তা কতটুকু প্রস্ফুটিত করতে পেরেছি জানি না। চেষ্টা করেছি। শিখেছি অনেক কিছু। সে আদর্শ ধারন করে পথ চলতে চাই।
অনুষ্ঠানে জেলা পুলিশের সর্বস্থরের কর্মকর্তা,কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com