রাত ১:১৮ | বৃহস্পতিবার | ১লা অক্টোবর, ২০২০ ইং | ১৬ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ময়মনসিংহে সাংবাদিকদের উপর হামলা ॥ ১৮ মে বৃহত্তর প্রতিবাদ সমাবেশ

বিল্লাল হোসেন প্রান্ত ॥
ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ত্রিশাল জাতীয় কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় শিার্থীদের দ্বিতীয় দিনের বরোধের খবর সংগ্রহ করার সময় সাংবাদিকদের উপর হামলা করেছে কতিপয় শিার্থী নামের সন্ত্রাসীরা।

হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন এটিএন বাংলার সাংবাদিক শাহ আলম উজ্জ্বল ও যমুনা টিভির ক্যামেরাপারসন দেলোয়ার হোসেন। একাধিক সাংবাদিককে লাঞ্চিত করাসহ ছিনিয়ে নেয়া হয়েছে বেশ কয়েকটি মোবাইল ফোন।

সোমবার ১৪ মে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিার্থীদের টানা ৫ ঘন্টা সদর উপজেলার বেলতলী ঢাকা মহাসড়ক আবরোধের খবর সংগ্রহ করে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কতিপয় সন্ত্রাসী শিার্থীদের গ্রেফতার ও বিচার দাবিতে ময়মনসিংহে প্রতিবাদ সভা ও মানববন্ধন কর্মসুচী পালিত হয়েছে।

মানবব্ধন থেকে আগামী ১৮ মে বৃহত্তর ময়মনসিংহের সাংবাদিকদের নিয়ে প্রতিবাদ সমাবেশ করার ঘোষণা দেয়া হয়।

ময়মনসিংহ প্রেসকাব, সাংবাদিক ইউনিয়ন, সিটি প্রেসকাব, রিপোর্টার্স ইউনিটি, টেলিভিশন জার্ণালিষ্ট অ্যাসোসিয়েশন, বাংলাদেশ ফটোর্জানালিষ্ট ময়মনসিংহ,সাংবাদিক বহুমুখি সমবায় সমিতি ও ইয়থ জার্নালিষ্ট ফোরাম যৌথভাবে ওই কর্মসুচীর আয়োজন করে।

১৪ মে বিকেলে ময়মনসিংহ সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আতাউল করিম খোকন এর সভাপতিত্বে প্রেসকাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভায় জেলা প্রশাসক ড. সুভাষ চন্দ্র বিশ্বাস ও পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম উপস্থিত হয়ে সাংবাদিকদের প্রতি সমবেদনা জানান।

তারা দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন। প্রতিবাদ সভা ও দেড় ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসুচীতে আরো বক্তব্য রাখেন ময়মনসিংহ প্রেসকাবের সাধারণ সম্পাদক শেখ মহিউদ্দিন আহমেদ, ময়মনসিংহ সিটি প্রেসকাবের সভাপতি আইয়ুব আলী, ময়মনসিংহ রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মোশাররফ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, সাংবাদিক বহুমুখি সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক মীর গোলাম মোস্তফা, টেলিভিশন জার্নালিষ্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি অমিত রায় ও সাধারণ সম্পাদক আবু সালেহ মো. মুসা, প্রবীণ সাংবাদিক জিয়াউদ্দিন আহমদ, এমইউজে’র সাবেক সভাপতি এ জেড এম ইমামউদ্দিন মুক্তা, প্রেসকাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বাবুল হোসেন, ইয়থ জার্নালিষ্ট ফোরামের সভাপতি রাকিবুল হাসান রুবেল, যমুনাটিভির সাংবাদিক হোসাইন শাহিদ, আলোকচিত্র শিল্পী সংসদের সাধারণ সম্পাদক এএইচএম মোতালেব, দৈনিক মাটি ও মানুষ বার্তা সম্পাদক বিল্লাল হোসেন প্রান্ত, স্টাফ রিপোর্ট মোঃ কামাল, ব্রেকিং নিউজ ময়মনসিংহ জেলা প্রতিনিধি মাসুদ রানা, ব্রহ্মপুত্র নির্বাহী সম্পাদক আনিসুর রহমান ফারুক প্রমুখ।

কর্মসুচীর প্রতি একাত্মতা প্রকাশ করেন জেলা মোটর মালিক সমিতির সভাপতি মোমতাজ উদ্দিন, কারিগরি শিা কল্যাণ সমিতির সভাপতি নাজমুল ইসলাম, বাংলাদেশ সংবাদপত্র এজেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু বকর সিদ্দিক। এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে একাত্মতা প্রকাশ করেছে ময়মনসিংহ বিভাগীয় প্রেসকাবের সভাপতি একেএম ফখরুল আলম বাপ্পী চৌধুরী, সহ সভাপতি ও দৈনিক মাটি ও মানুষ ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক আলহাজ আশিক চৌধুরী।

বক্তারা বলেন হামলাকারিরা গ্রেফতার না হওয়া পর্যন্ত কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের সব ধরণের খবর বর্জন ও আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষনা দেয়া হয়।

ময়মনসিংহের ত্রিশালে অবস্থিত জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক-শিার্থীদের সাথে রোববার পরিবহন শ্রমিকদের সংঘর্ষের ঘটনায় সোমবার (১৪ মে) বেলা ১১টার দিকে সদর উপজেলার বেলতলীতে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক অবরোধ করে শিার্থীরা।

তান্ডব চালিয়ে গাছের গুড়ি ফেলে, টায়ারে, রাস্তায় কৃষকের ধান,খরে আগুন লাগিয়ে পুরো ৩ কিলোমিটার মহাসড়ক জুড়ে রনত্রে পরিনত করা হয়। এসময় শিার্থীরা প্রকাশ্যে পিস্তল, রামদা, লাঠিসোটা নিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। এসময় আশাপাশের ঘরবাড়ি ও দোকানপাঠ ভাঙচুর করা হয়। এ সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজের প্রতিনিধি শাহ আলম উজ্জ্বল এবং যমুনা টিভির ক্যামেরাম্যান দেলোয়ার হোসেনকে বেধড়ক মারধর করে রক্তাক্ত জখম করে ও তাদের ক্যামেরা ছিনিয়ে নেয়। মোবাইল ছিনিয়ে নেয় দৈনিক মাটি ও মানুষের সাংবাদিক মোঃ কামাল ও ব্রেকিং নিউজ ময়মনসিংহ প্রতিনিধি মাসুদ রানার।

উল্লেখ্য, রোববার বিকেলে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক-শিার্থীদের নিয়ে কয়েকটি গাড়ি শহরে আসার পথে বেলতলীতে বালুভর্তি একটি ট্রাককে ধাক্কা দেয়। এরপর শিক ও শিার্থীরা গাড়ি থেকে নেমে ট্রাক চালককে মারধর করে। স্থানীয় এলাকাবাসি এঘটনার প্রতিবাদ জানালে শিার্থীরা মহসড়ক অবরোধ করে যানবাহন চালাচল বন্ধ করে দেয় এবং প্রায় অর্ধশত যানবাহন ভাঙচুর করে। হামলার ঘটনায় শতাধিক যাত্রী আহত হন। এব্যাপারে প্রিন্ট ,ইলেস্ট্রনিক,অনলাইন মিডিয়ায় খবর প্রচারিত হলে শিার্থীরা ুব্ধ হয়। এর জেরেই সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটে।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» অনিয়ন্ত্রিত ময়মনসিংহ ছাত্রলীগ! দায় কাদের?

» প্রতিবন্ধী ও অসহায়দের মাঝে ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগের খাবার বিতরণ

» প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে জেলা যুবলীগের বৃক্ষ রোপণ ও খাবার বিতরণ

» ময়মনসিংহের কৃষ্টপুরে নিয়ম বহির্ভূত বিল্ডিংয়ে জনদুর্ভোগ

» ময়মনসিংহে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের প্রতিবাদ সমাবেশ, মানববন্ধন

» ছাত্রলীগের পদ প্রত্যাশায় ত্যাগী নেতাদের নিয়ে সমালোচনার প্রতিযোগীতা

» পরাণগঞ্জে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন প্রতিবাদ সমাবেশ

» কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের আগস্ট আলোচনা সভায় ময়মনসিংহ জেলা ছাত্রলীগ

» দলীয় সিদ্ধান্তের ভিত্তিতে সম্মেলন;একান্ত স্বাক্ষাৎকারে-সাংঠনিক সম্পাদক নাদেল

» সংগ্রাম ছাড়া, রাজপথ ছাড়া নেতা হওয়া যায়না,চক্রান্ত করা যায়- ইউসুফ খান পাঠান

» ময়মনসিংহে দোকানকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ ককটেল চার্জ ৩১ আটক

» ময়মনসিংহে ফের ৮জনের মৃত্যু; মানুষ খেকো মহাসড়ক ১৪ দিনে কেড়ে নিলো ২২ প্রাণ

» ময়মনসিংহের সড়কে মৃত্যুর মিছিল! ১০ দিনের ব্যবধানে ঝরে গেল ১৫ তাজা প্রাণ

» ধোবাউড়ায় গৃহবধূর মৃত্যু; আত্মহত্যা না হত্যা তা নিয়ে ধুম্রজাল!

» ময়মনসিংহে বাস-সিএনজি সংঘর্ষে নিহত ৭

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

ময়মনসিংহে সাংবাদিকদের উপর হামলা ॥ ১৮ মে বৃহত্তর প্রতিবাদ সমাবেশ

বিল্লাল হোসেন প্রান্ত ॥
ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ত্রিশাল জাতীয় কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয় শিার্থীদের দ্বিতীয় দিনের বরোধের খবর সংগ্রহ করার সময় সাংবাদিকদের উপর হামলা করেছে কতিপয় শিার্থী নামের সন্ত্রাসীরা।

হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন এটিএন বাংলার সাংবাদিক শাহ আলম উজ্জ্বল ও যমুনা টিভির ক্যামেরাপারসন দেলোয়ার হোসেন। একাধিক সাংবাদিককে লাঞ্চিত করাসহ ছিনিয়ে নেয়া হয়েছে বেশ কয়েকটি মোবাইল ফোন।

সোমবার ১৪ মে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিার্থীদের টানা ৫ ঘন্টা সদর উপজেলার বেলতলী ঢাকা মহাসড়ক আবরোধের খবর সংগ্রহ করে গেলে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের কতিপয় সন্ত্রাসী শিার্থীদের গ্রেফতার ও বিচার দাবিতে ময়মনসিংহে প্রতিবাদ সভা ও মানববন্ধন কর্মসুচী পালিত হয়েছে।

মানবব্ধন থেকে আগামী ১৮ মে বৃহত্তর ময়মনসিংহের সাংবাদিকদের নিয়ে প্রতিবাদ সমাবেশ করার ঘোষণা দেয়া হয়।

ময়মনসিংহ প্রেসকাব, সাংবাদিক ইউনিয়ন, সিটি প্রেসকাব, রিপোর্টার্স ইউনিটি, টেলিভিশন জার্ণালিষ্ট অ্যাসোসিয়েশন, বাংলাদেশ ফটোর্জানালিষ্ট ময়মনসিংহ,সাংবাদিক বহুমুখি সমবায় সমিতি ও ইয়থ জার্নালিষ্ট ফোরাম যৌথভাবে ওই কর্মসুচীর আয়োজন করে।

১৪ মে বিকেলে ময়মনসিংহ সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আতাউল করিম খোকন এর সভাপতিত্বে প্রেসকাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভায় জেলা প্রশাসক ড. সুভাষ চন্দ্র বিশ্বাস ও পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম উপস্থিত হয়ে সাংবাদিকদের প্রতি সমবেদনা জানান।

তারা দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন। প্রতিবাদ সভা ও দেড় ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসুচীতে আরো বক্তব্য রাখেন ময়মনসিংহ প্রেসকাবের সাধারণ সম্পাদক শেখ মহিউদ্দিন আহমেদ, ময়মনসিংহ সিটি প্রেসকাবের সভাপতি আইয়ুব আলী, ময়মনসিংহ রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মোশাররফ হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, সাংবাদিক বহুমুখি সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক মীর গোলাম মোস্তফা, টেলিভিশন জার্নালিষ্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি অমিত রায় ও সাধারণ সম্পাদক আবু সালেহ মো. মুসা, প্রবীণ সাংবাদিক জিয়াউদ্দিন আহমদ, এমইউজে’র সাবেক সভাপতি এ জেড এম ইমামউদ্দিন মুক্তা, প্রেসকাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক বাবুল হোসেন, ইয়থ জার্নালিষ্ট ফোরামের সভাপতি রাকিবুল হাসান রুবেল, যমুনাটিভির সাংবাদিক হোসাইন শাহিদ, আলোকচিত্র শিল্পী সংসদের সাধারণ সম্পাদক এএইচএম মোতালেব, দৈনিক মাটি ও মানুষ বার্তা সম্পাদক বিল্লাল হোসেন প্রান্ত, স্টাফ রিপোর্ট মোঃ কামাল, ব্রেকিং নিউজ ময়মনসিংহ জেলা প্রতিনিধি মাসুদ রানা, ব্রহ্মপুত্র নির্বাহী সম্পাদক আনিসুর রহমান ফারুক প্রমুখ।

কর্মসুচীর প্রতি একাত্মতা প্রকাশ করেন জেলা মোটর মালিক সমিতির সভাপতি মোমতাজ উদ্দিন, কারিগরি শিা কল্যাণ সমিতির সভাপতি নাজমুল ইসলাম, বাংলাদেশ সংবাদপত্র এজেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবু বকর সিদ্দিক। এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে একাত্মতা প্রকাশ করেছে ময়মনসিংহ বিভাগীয় প্রেসকাবের সভাপতি একেএম ফখরুল আলম বাপ্পী চৌধুরী, সহ সভাপতি ও দৈনিক মাটি ও মানুষ ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক আলহাজ আশিক চৌধুরী।

বক্তারা বলেন হামলাকারিরা গ্রেফতার না হওয়া পর্যন্ত কবি নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের সব ধরণের খবর বর্জন ও আন্দোলন অব্যাহত রাখার ঘোষনা দেয়া হয়।

ময়মনসিংহের ত্রিশালে অবস্থিত জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক-শিার্থীদের সাথে রোববার পরিবহন শ্রমিকদের সংঘর্ষের ঘটনায় সোমবার (১৪ মে) বেলা ১১টার দিকে সদর উপজেলার বেলতলীতে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক অবরোধ করে শিার্থীরা।

তান্ডব চালিয়ে গাছের গুড়ি ফেলে, টায়ারে, রাস্তায় কৃষকের ধান,খরে আগুন লাগিয়ে পুরো ৩ কিলোমিটার মহাসড়ক জুড়ে রনত্রে পরিনত করা হয়। এসময় শিার্থীরা প্রকাশ্যে পিস্তল, রামদা, লাঠিসোটা নিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। এসময় আশাপাশের ঘরবাড়ি ও দোকানপাঠ ভাঙচুর করা হয়। এ সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে এটিএন বাংলা ও এটিএন নিউজের প্রতিনিধি শাহ আলম উজ্জ্বল এবং যমুনা টিভির ক্যামেরাম্যান দেলোয়ার হোসেনকে বেধড়ক মারধর করে রক্তাক্ত জখম করে ও তাদের ক্যামেরা ছিনিয়ে নেয়। মোবাইল ছিনিয়ে নেয় দৈনিক মাটি ও মানুষের সাংবাদিক মোঃ কামাল ও ব্রেকিং নিউজ ময়মনসিংহ প্রতিনিধি মাসুদ রানার।

উল্লেখ্য, রোববার বিকেলে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক-শিার্থীদের নিয়ে কয়েকটি গাড়ি শহরে আসার পথে বেলতলীতে বালুভর্তি একটি ট্রাককে ধাক্কা দেয়। এরপর শিক ও শিার্থীরা গাড়ি থেকে নেমে ট্রাক চালককে মারধর করে। স্থানীয় এলাকাবাসি এঘটনার প্রতিবাদ জানালে শিার্থীরা মহসড়ক অবরোধ করে যানবাহন চালাচল বন্ধ করে দেয় এবং প্রায় অর্ধশত যানবাহন ভাঙচুর করে। হামলার ঘটনায় শতাধিক যাত্রী আহত হন। এব্যাপারে প্রিন্ট ,ইলেস্ট্রনিক,অনলাইন মিডিয়ায় খবর প্রচারিত হলে শিার্থীরা ুব্ধ হয়। এর জেরেই সাংবাদিকদের ওপর হামলার ঘটনা ঘটে।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com