দুপুর ১:৪৮ | শনিবার | ৪ঠা জুলাই, ২০২০ ইং | ২০শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গনে গৃহহীন হচ্ছে অষ্টধার ইউনিয়নের শত শত পরিবার

ডেক্স নিউজ : কয়েকদিনের ভারি বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা ঢলে ময়মনসিংহ সদর উপজেলার অষ্টধার ইউনিয়নে ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে।

 

 

এক সপ্তাহে উপজেলার অষ্টধার ইউনিয়নে রাস্তা ঘাটসহ শতাধিক বসতবাড়ি ও এক শতাধিক একর ফসলি জমি নদে বিলীন হয়ে গেছে। নদের ভাঙনের তীব্রতার কারণে সংশ্লিষ্ট এলাকার পরিবারগুলো তাদের ঘরবাড়ি সরিয়ে নিয়ে যাচ্ছে।

 

 

ব্রহ্মপুত্র নদের পানি বৃদ্ধির কারণে অষ্টধার ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের সেনেরচর, তারাপুর সেনেরচর,রেহাই তারাপুর, ঝাপারকান্দা গ্রামে তীব্র ভাঙন দেখা দিয়েছে।

ব্রহ্মপুত্র নদের পানি বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তীব্র স্রোত দেখা দিয়েছে। প্রবল স্রোতের কারণে উজানের ভাঙনে তারাপুর সেনেরচর, ঝাপারকান্দা গ্রামের আবাদি বিভিন্ন ফসলের জমি নদে বিলীন হয়ে যাচ্ছে। বর্তমানে এসব আবাদী জমিতে বেগুন, মরিচ, পটল, কড়লা, শসা, ঢেঁড়স, পাটসহ নানাবিধ ফসল রয়েছে। কিন্তু নদের ভাঙনের কারণে সেসব ফসল কৃষকরা ঘরে তুলতে পারছেন না।

 

 

অষ্টধার ইউনিয়নের ঝাপারকান্দা গ্রামের জয়নাল আবেদীন জানান, ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙনে চরাঞ্চলের লোকজন দিশেহারা হয়ে পড়েছে। এ সময় নদী ভাঙনের কথা নয়। অথচ গত চার মাস থেকে দফায় দফায় নদে ভাঙন চলছে। যার কারণে অষ্টধার ইউনিয়নের পাচশ বিঘা ফসলি জমি ইতিমধ্যে নদে বিলীন হয়ে গেছে।

 

 

চরের মানুষ শাকসবজির আবাদ করে ৬ মাস সংসার চালায়। কিন্তু এ বছর নদে ভাঙন অব্যাহত থাকায় কৃষকরা শাকসবজি ঘরে তুলতে পারছে না।

 

 

তিনি জানান, তার দুই বিঘা জমির তোষাপাট ও এক বিঘা জমির পটোল ক্ষেত নদে বিলীন হয়ে গেছে। তাই ভাঙনরোধে একটি স্থায়ী বাঁধের নির্মাণের দাবি স্থানীয়দের। ১নং অষ্টধার ইউপি চেয়ারম্যান মো: তারেক হাসান জানান, ড্রেজিং করে নদের স্বাভাবিক গতিপথ ঠিক রাখা ছাড়া ভাঙন রোধ সম্ভব নয়। কারণ দীর্ঘদিন ধরে পলি জমে নদের গতিপথ পরিবর্তন হয়েছে। নদের ভাঙন ঠেকাতে হলে স্থায়ীভাবে ব্যবস্থা নিতে হবে।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেখ হাফিজুর রহমান জানান, আমি ব্রহ্মপুত্র নদে ভাঙ্গন কবলিত ঝাপারকান্দা গ্রাম পরিদর্শন করেছি। এ ব্যাপারে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।

 

 

তিনি আরো জানান, ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে নগদ অর্থ প্রদান করেছি। এবং উক্ত ক্ষতিগ্রস্থ লোকদের পুন:বাসনের ব্যবস্থা নিতে কাজ করে যাচ্ছি ।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» যুবলীগ চেয়ারম্যানের জন্মদিন উপলক্ষে ময়মনসিংহ জেলা যুবলীগের দোয়া মাহফিল

» ৬২ বছরের আস্থায় অটুট সাবেক সফল ধর্মমন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমান

» মুক্তাগাছায় ছাগল পেপে গাছ খাওয়াকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের আঘাতে যুবক নিহত

» ময়মনসিংহে পাইপগানসহ ৪ ডাকাত গ্রেফতার

» মুক্তাগাছায় সংখ্যালঘু পরিবারের জমি জবরদখলের পায়তারা;বাউন্ডারি দেয়াল ভাংচুর

» মুজিব শতবর্ষ উপলক্ষে ময়মনসিংহ জেলা যুবলীগের বৃক্ষ রোপণ

» আঃ লীগের ৭১ তম জন্মদিনে সাবেক ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমানের ভিডিও বার্তায় শুভেচ্ছা

» ময়মনসিংহ জেলা পুলিশের ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত চক্ষু চিকিৎসক হরি শংকর দাস

» চরাঞ্চলে ঐতিহাসিক দরবার; উপজেলা চেয়ারম্যান আশরাফ হোসাইনের একদিন

» গুষ্ঠিগত বিরোধে পাল্টাপাল্টি ১০ মামলা; ধান আটকে মীমাংসার পায়তারা

» পরকিয়ার জেরে লাভলী হত্যাকান্ড; হত্যাকারী ডিবির হাতে গ্রেফতার

» অজ্ঞাত সেই নারীর পরিচয় মিলেছে, হত্যাকারী সনাক্তে মাঠে নেমেছে ডিবি পুলিশ

» ফুলবাড়িয়ায় জঙ্গল থেকে অজ্ঞাত নারীর বিবস্ত্র লাশ উদ্ধার

» ভালুকা থেকে তিন জঙ্গি গ্রেফতার

» অনুমতি ছাড়াই বেগুনবাড়ি স্কুলের গাছ কেটে বিক্রি করল ম্যানেজিং কমিটির সদস্য

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গনে গৃহহীন হচ্ছে অষ্টধার ইউনিয়নের শত শত পরিবার

ডেক্স নিউজ : কয়েকদিনের ভারি বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা ঢলে ময়মনসিংহ সদর উপজেলার অষ্টধার ইউনিয়নে ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে।

 

 

এক সপ্তাহে উপজেলার অষ্টধার ইউনিয়নে রাস্তা ঘাটসহ শতাধিক বসতবাড়ি ও এক শতাধিক একর ফসলি জমি নদে বিলীন হয়ে গেছে। নদের ভাঙনের তীব্রতার কারণে সংশ্লিষ্ট এলাকার পরিবারগুলো তাদের ঘরবাড়ি সরিয়ে নিয়ে যাচ্ছে।

 

 

ব্রহ্মপুত্র নদের পানি বৃদ্ধির কারণে অষ্টধার ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের সেনেরচর, তারাপুর সেনেরচর,রেহাই তারাপুর, ঝাপারকান্দা গ্রামে তীব্র ভাঙন দেখা দিয়েছে।

ব্রহ্মপুত্র নদের পানি বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তীব্র স্রোত দেখা দিয়েছে। প্রবল স্রোতের কারণে উজানের ভাঙনে তারাপুর সেনেরচর, ঝাপারকান্দা গ্রামের আবাদি বিভিন্ন ফসলের জমি নদে বিলীন হয়ে যাচ্ছে। বর্তমানে এসব আবাদী জমিতে বেগুন, মরিচ, পটল, কড়লা, শসা, ঢেঁড়স, পাটসহ নানাবিধ ফসল রয়েছে। কিন্তু নদের ভাঙনের কারণে সেসব ফসল কৃষকরা ঘরে তুলতে পারছেন না।

 

 

অষ্টধার ইউনিয়নের ঝাপারকান্দা গ্রামের জয়নাল আবেদীন জানান, ব্রহ্মপুত্র নদের ভাঙনে চরাঞ্চলের লোকজন দিশেহারা হয়ে পড়েছে। এ সময় নদী ভাঙনের কথা নয়। অথচ গত চার মাস থেকে দফায় দফায় নদে ভাঙন চলছে। যার কারণে অষ্টধার ইউনিয়নের পাচশ বিঘা ফসলি জমি ইতিমধ্যে নদে বিলীন হয়ে গেছে।

 

 

চরের মানুষ শাকসবজির আবাদ করে ৬ মাস সংসার চালায়। কিন্তু এ বছর নদে ভাঙন অব্যাহত থাকায় কৃষকরা শাকসবজি ঘরে তুলতে পারছে না।

 

 

তিনি জানান, তার দুই বিঘা জমির তোষাপাট ও এক বিঘা জমির পটোল ক্ষেত নদে বিলীন হয়ে গেছে। তাই ভাঙনরোধে একটি স্থায়ী বাঁধের নির্মাণের দাবি স্থানীয়দের। ১নং অষ্টধার ইউপি চেয়ারম্যান মো: তারেক হাসান জানান, ড্রেজিং করে নদের স্বাভাবিক গতিপথ ঠিক রাখা ছাড়া ভাঙন রোধ সম্ভব নয়। কারণ দীর্ঘদিন ধরে পলি জমে নদের গতিপথ পরিবর্তন হয়েছে। নদের ভাঙন ঠেকাতে হলে স্থায়ীভাবে ব্যবস্থা নিতে হবে।

 

 

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শেখ হাফিজুর রহমান জানান, আমি ব্রহ্মপুত্র নদে ভাঙ্গন কবলিত ঝাপারকান্দা গ্রাম পরিদর্শন করেছি। এ ব্যাপারে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে।

 

 

তিনি আরো জানান, ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে নগদ অর্থ প্রদান করেছি। এবং উক্ত ক্ষতিগ্রস্থ লোকদের পুন:বাসনের ব্যবস্থা নিতে কাজ করে যাচ্ছি ।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com