সকাল ৯:২০ | শনিবার | ২২শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং | ৯ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ব্রহ্মপুত্র নদে অবৈধ ড্রেজার পুড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

ময়মনসিংহ নগরীর মাঝ দিয়ে বহমান মৃতপ্রায় নদ ব্রহ্মপুত্রে নিয়ম নীতির তোকাক্কা না করে বছরের পর বছর চলে অবৈধ ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন। এতে করে নদের পানি প্রবাহ বাধাগ্রস্থ হয়ে বিভিন্ন জায়গায় ভাঙ্গনসহ গতিপথ পরিবর্তনের মতো বৃহত্তর সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে। ঝুঁকিতে পড়ছে নগর রক্ষা বাঁধ।

 

 

ব্রহ্মপুত্র নদে অবৈধভাবে  বালু উত্তোলন নিয়ে জেলা প্রশাসন নানা পদক্ষেপ নিয়ে বালু ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটকে শতর্ক করেন। বেশ কয়েকবার ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে ভাংচুর করে উচ্ছেদ করা হয় অবৈধ ড্রেজার। এরপরও কিছু প্রভাবশালী বালু সিন্ডিকেট অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে চলছিলো।

 

 

বৃহস্পতিবার বিকালে ময়মনসিংহ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও শেখ হাফিজুর রহমান, সহকারী কমিশনার ভূমি এম সাজ্জাদুল হাসান এ অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় ময়মনসিংহ পুলিশ লাইন্স ঘাটে অবৈধভাবে উত্তোলিত পাচটি ড্রেজার আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেন। এবং উত্তোলিত বালু জব্দ করে লাল নিশান লাগিয়ে দেন। অভিযানে বাধা দেয়ার দায়ে তিনজনকে আটক করে পুলিশ।

জানা যায়, পুলিশ লাইন্স ঘাটের ইজারাদার আমিনুল  হক ইজারার নিয়ম ভঙ্গ করে একাধিক ড্রেজার মালিককে সাব ইজারা দিয়ে নিয়ম বহির্ভুতভাবে সুবিধা নিচ্ছে। যা জেলা প্রশাসনের দেয়া নিয়মের পরিপন্থী। এক্ষেত্রে নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ হাফিজুর রহমান বলেছেন, ইজারার নিয়ম ভঙ্গ করায় এই ঘাটের ইজারা বালিত করা হতে পারে।

 

 

জানা গেছে, ময়মনসিংহ ব্রহ্মপুত্র নদের সিমানায় কোন ড্রেজার বা বালু উত্তোলনে কোন প্রকার ইজারা আর দেয়া হবে না। কারণ সরকার নদী খননে ও নদের নাব্যতা ফিরিয়ে আনতে নানা কর্মসূচি ও পরিকল্পনা প্রনয়ন করেছে। ইতিমধ্যে পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তিক ব্রহ্মপুত্র নদ খনন কাজ চলছে। ব্রহ্মপুত্রের পাড় ঘেঁষে ময়মনসিংহ জামালপুর লাগুয়া ১৮ ফিট সড়ক নির্মান কাজ শুরু হবে আগামী বছরের মধ্যেই। ময়মনসিংহ বিভাগীয় শহরকে পুরাতন নগরীতে সংযুক্ত করতে ব্রহ্মপুত্রের উপর দিয়ে তিনটি সেতু নির্মানের পরিকল্পনাও রয়েছে।

 

 

জানা যায়, পুলিশ লাইন্স বালু ঘাটে রাজনৈতিক একটি প্রভাবশালী মহলের ইন্ধনে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করা হচ্ছিলো। যা প্রশাসনের বিভিন্ন মহলের চোখে পড়লে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়। এরই প্রেক্ষিতে গতকাল ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অবৈধ বালু উত্তোলনে ব্যবহৃত ড্রেজার ধ্বংস করা হয়। এ অভিযানকে সাধুবাদ জানিয়েছে ময়মনসিংহের সচেতন মহল।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» শীতকালীন প্রকৃতি ও মানব জীবনের পরিবেশ দর্শন

» র‍্যাবের দ্বিতীয় দিনের অভিযানে দুই প্রাইভেট হাসপাতালকে ১২ লাখ টাকা জরিমানা

» র‍্যাব-১৪ এর হাতে ৯০৫ বোতল ফেনসিডিলসহ ২ জন গ্রেফতার

» জমি সংক্রান্ত বিরোধে ছোট ভাইদের হাতে বড় ভাই খুন

» জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে আল হোসাইন তাজ সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত

» শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুতি;গ্রাম শহরে রুপান্তর হচ্ছে- অষ্টধারে মোহিত উর রহমান শান্ত

» ময়মনসিংহের অবৈধ নদী দখলদারদের তালিকা প্রকাশ

» নগরীর বিভিন্ন মাদক পয়েন্টে ময়মনসিংহ পুলিশের ব্লক রেইড,গ্রেফতার-৭

» ময়মনসিংহে এক শহীদ জননীর শেষ আকুতি প্রধানমন্ত্রীর স্বাক্ষাৎ

» মমেক হাসপাতালে ক্যাথল্যাব স্থাপন, কার্যক্রম শুরু ফেব্রুয়ারিতে

» ময়মনসিংহে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে অপপ্রচারকারী গ্রেফতার

» অসহায়দের মাঝে ময়মনসিংহ পুনাক সভানেত্রীর শীতবস্ত্র বিতরণ

» অস্ত্র গুলিসহ বিল্লাল র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার

» ময়মনসিংহ আজাদ শপিং সেন্টারে আগুন

» ময়মনসিংহে ডাবল মার্ডার,ঘাতক কিশোরগঞ্জে গ্রেফতার

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

ব্রহ্মপুত্র নদে অবৈধ ড্রেজার পুড়িয়ে দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

ময়মনসিংহ নগরীর মাঝ দিয়ে বহমান মৃতপ্রায় নদ ব্রহ্মপুত্রে নিয়ম নীতির তোকাক্কা না করে বছরের পর বছর চলে অবৈধ ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন। এতে করে নদের পানি প্রবাহ বাধাগ্রস্থ হয়ে বিভিন্ন জায়গায় ভাঙ্গনসহ গতিপথ পরিবর্তনের মতো বৃহত্তর সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে। ঝুঁকিতে পড়ছে নগর রক্ষা বাঁধ।

 

 

ব্রহ্মপুত্র নদে অবৈধভাবে  বালু উত্তোলন নিয়ে জেলা প্রশাসন নানা পদক্ষেপ নিয়ে বালু ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটকে শতর্ক করেন। বেশ কয়েকবার ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে ভাংচুর করে উচ্ছেদ করা হয় অবৈধ ড্রেজার। এরপরও কিছু প্রভাবশালী বালু সিন্ডিকেট অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করে চলছিলো।

 

 

বৃহস্পতিবার বিকালে ময়মনসিংহ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও শেখ হাফিজুর রহমান, সহকারী কমিশনার ভূমি এম সাজ্জাদুল হাসান এ অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় ময়মনসিংহ পুলিশ লাইন্স ঘাটে অবৈধভাবে উত্তোলিত পাচটি ড্রেজার আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেন। এবং উত্তোলিত বালু জব্দ করে লাল নিশান লাগিয়ে দেন। অভিযানে বাধা দেয়ার দায়ে তিনজনকে আটক করে পুলিশ।

জানা যায়, পুলিশ লাইন্স ঘাটের ইজারাদার আমিনুল  হক ইজারার নিয়ম ভঙ্গ করে একাধিক ড্রেজার মালিককে সাব ইজারা দিয়ে নিয়ম বহির্ভুতভাবে সুবিধা নিচ্ছে। যা জেলা প্রশাসনের দেয়া নিয়মের পরিপন্থী। এক্ষেত্রে নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ হাফিজুর রহমান বলেছেন, ইজারার নিয়ম ভঙ্গ করায় এই ঘাটের ইজারা বালিত করা হতে পারে।

 

 

জানা গেছে, ময়মনসিংহ ব্রহ্মপুত্র নদের সিমানায় কোন ড্রেজার বা বালু উত্তোলনে কোন প্রকার ইজারা আর দেয়া হবে না। কারণ সরকার নদী খননে ও নদের নাব্যতা ফিরিয়ে আনতে নানা কর্মসূচি ও পরিকল্পনা প্রনয়ন করেছে। ইতিমধ্যে পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তিক ব্রহ্মপুত্র নদ খনন কাজ চলছে। ব্রহ্মপুত্রের পাড় ঘেঁষে ময়মনসিংহ জামালপুর লাগুয়া ১৮ ফিট সড়ক নির্মান কাজ শুরু হবে আগামী বছরের মধ্যেই। ময়মনসিংহ বিভাগীয় শহরকে পুরাতন নগরীতে সংযুক্ত করতে ব্রহ্মপুত্রের উপর দিয়ে তিনটি সেতু নির্মানের পরিকল্পনাও রয়েছে।

 

 

জানা যায়, পুলিশ লাইন্স বালু ঘাটে রাজনৈতিক একটি প্রভাবশালী মহলের ইন্ধনে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করা হচ্ছিলো। যা প্রশাসনের বিভিন্ন মহলের চোখে পড়লে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়। এরই প্রেক্ষিতে গতকাল ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অবৈধ বালু উত্তোলনে ব্যবহৃত ড্রেজার ধ্বংস করা হয়। এ অভিযানকে সাধুবাদ জানিয়েছে ময়মনসিংহের সচেতন মহল।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com