রাত ১১:০৫ | মঙ্গলবার | ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ইং | ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ভূয়া বিয়ের সনদ তৈরি করে চার সন্তানের মাকে পোষ্টার ছেপে হয়রানি ; প্রতারক হানিফ গ্রেফতার

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

কাজের সুবাদে মরিয়মের সাথে পরিচয় হানিফ বাবুর্চি নামে এক প্রতারকের।মোবাইলে কথপোকথন। সরকারি সাহায্যের সুবিধা পাইয়ে দেয়ার কথা বলে মরিয়মের ছবি ও ভোটার আইডি কার্ড নেয় হানিফ। অতঃপর ভূয়া কোট ম্যারিজের সনদ বানিয়ে হয়রানির শিকার করে মরিয়মকে। গ্রাম ছাড়া করতে মরিয়মের ছবিযুক্ত পোষ্টার ছেপে মিথ্যা অপপ্রচার চালায় ওই প্রতারক। মরিয়মের অভিযোগের ভিত্তিতে ২৩ ফেব্রুয়ারি কোতোয়ালী পুলিশ তাৎক্ষনিক অভিযান চালিয়ে প্রতারক হানিফকে গ্রেফতার করে।

 

 

ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহ সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি তারাগাই গ্রামের শ্রমজীবি নারী মরিয়ম বেগমের সাথে। চার সন্তানের জননী মরিয়ম বেগমের অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, চার মাস আগে নগরীর মফিজ উদ্দিন ইনডেক্স প্লাজায় ঝাড়ুদারের কাজ করতো সে। পাশেই নতুন বাজার গেন্দু মিয়ার হোটেলে বাবুর্চির কাজের সুবাধে মরিয়মের সাথে পরিচয় হয় হানিফের। এসময় হানিফ মরিয়মকে সরকারি অনুদানের কার্ড পাইয়ে দেয়ার কথা বলে আইডি কার্ডের একটি ফটোকপি ও রঙ্গিন ছবি নেয় মরিয়মের। এর কিছুদিন পর মরিয়ম তার স্বামী সন্তান নিয়ে গাজীপুর গার্মেন্সে চাকুরিতে চলে যায়।

 

 

এদিকে প্রতারক হানিফ মরিয়মের ছবি ও আইডি কার্ড নিয়ে ভূয়া নোটারি পাবলিকের বিবাহ সনদ তৈরি করে। এবং তা বেগুনবাড়ি এলাকার একাদিক লোককে দিয়ে মরিয়মের নামে মিথ্যা বিয়ের অপবাদ ছড়ায়। একইসাথে মরিয়মের ছবি দিয়ে পোষ্টার ছেপে মিথ্যা তথ্য সম্বলিত অপপ্রচার চালায়। এসব তথ্য সম্পর্কে মরিয়ম অবহিত হয়ে গ্রামে আসলে গ্রামের কিছু লোক তাকে গ্রাম ছাড়ার হুমকি দেয়। মরিয়ম বিষয়টি উল্লেখ করে ২২ ফেব্রুয়ারি কোতোয়ালী থানায় অভিযোগ প্রদান করে।

 

 

মরিয়মের লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ফিরোজ তালুকদার ঘটনাটি তদন্তে এস আই টিটুকে দায়িত্ব দেন। এসআই টিটু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত হয়ে তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে ২৩ ফেব্রুয়ারি নতুন বাজার এলাকা থেকে হানিফকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদাতলে প্রেরন করে। যার মামলা নং ৮৯ তাং ২২ ফেব্রুয়ারি।

 

 

নারী হয়রানির এ ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে ময়মনসিংহ জেলায় ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। সচেতন মহল অহেতুক নারী হয়রানির এমন ঘটনায় হতবাক হয়ে এর পেছনে মূল ষড়যন্ত্রের কারণ উদঘাটনে পুলিশের সুষ্ঠু তদন্ত দাবি করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ খবর



» ভূয়া বিয়ের সনদ তৈরি করে চার সন্তানের মাকে পোষ্টার ছেপে হয়রানি ; প্রতারক হানিফ গ্রেফতার

» ময়মনসিংহ ডিবি’র অভিযানে ৩ হাজার পিস ইয়াবাসহ ৪ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

» কোতোয়ালী পুলিশের তৎপরতায় আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নতি; ডাকাতি শূন্যের কোঠায়

» হাইব্রিড নিধনে শেখ হাসিনা তৎপর আগামীতে এদের অস্তিত্ব থাকবেনা দাপুনিয়া কর্মীসভায় শান্ত

» রাজনৈতিক বেনিয়াদের বিরুদ্ধে ঐক্যের ডাক; উচ্ছ্বাসে উত্তাল বিদ্রোহী মৌজা আকুয়া

» ময়মনসিংহ জেলায় শ্রেষ্ঠ ওসির পুরস্কার পেলেন মোঃ মাহমুদুল হাসান

» ৩২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগে রাজনৈতিক হৃদ্রতার মেলবন্ধন

» অটো ছিনিয়ে নিতেই সিয়াম হত্যাকান্ড, ২ ঘাতক গ্রেফতার, আলামত উদ্ধার

» শীতার্তদের মাঝে ময়মনসিংহ মহানগর সাধারণ সম্পাদকের কম্বল বিতরণ

» ময়মনসিংহে নৌকার পক্ষে ব্যাপক সাড়া

» ‌আজ ময়মনসিংহে ১৩০৫ পরিবার পাবে নিজেদের “ঠিকানা” আধপাকা ঘর

» আওয়ামী লীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক কমিটির সদস্য হলেন এমপি নাহিম রাজ্জাক

» টেকসই নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে বিট পুলিশিং সত্যিকার অর্থে বাস্তবায়ন হবে- এসপি আহমার উজ্জামান

» নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে জেলা স্কুল মোড়ে বহুতল ভবন; মসিক প্রশাসন উদাসীন!

» ময়মনসিংহে আইনজীবীদের মাঝে অ্যাডভোকেট নাহিদ সুলতানা যুথির সৌজন্যে মাস্ক বিতরণ

আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com

,

basic-bank

ভূয়া বিয়ের সনদ তৈরি করে চার সন্তানের মাকে পোষ্টার ছেপে হয়রানি ; প্রতারক হানিফ গ্রেফতার

বিল্লাল হোসেন প্রান্তঃ

কাজের সুবাদে মরিয়মের সাথে পরিচয় হানিফ বাবুর্চি নামে এক প্রতারকের।মোবাইলে কথপোকথন। সরকারি সাহায্যের সুবিধা পাইয়ে দেয়ার কথা বলে মরিয়মের ছবি ও ভোটার আইডি কার্ড নেয় হানিফ। অতঃপর ভূয়া কোট ম্যারিজের সনদ বানিয়ে হয়রানির শিকার করে মরিয়মকে। গ্রাম ছাড়া করতে মরিয়মের ছবিযুক্ত পোষ্টার ছেপে মিথ্যা অপপ্রচার চালায় ওই প্রতারক। মরিয়মের অভিযোগের ভিত্তিতে ২৩ ফেব্রুয়ারি কোতোয়ালী পুলিশ তাৎক্ষনিক অভিযান চালিয়ে প্রতারক হানিফকে গ্রেফতার করে।

 

 

ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহ সদর উপজেলার বেগুনবাড়ি তারাগাই গ্রামের শ্রমজীবি নারী মরিয়ম বেগমের সাথে। চার সন্তানের জননী মরিয়ম বেগমের অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, চার মাস আগে নগরীর মফিজ উদ্দিন ইনডেক্স প্লাজায় ঝাড়ুদারের কাজ করতো সে। পাশেই নতুন বাজার গেন্দু মিয়ার হোটেলে বাবুর্চির কাজের সুবাধে মরিয়মের সাথে পরিচয় হয় হানিফের। এসময় হানিফ মরিয়মকে সরকারি অনুদানের কার্ড পাইয়ে দেয়ার কথা বলে আইডি কার্ডের একটি ফটোকপি ও রঙ্গিন ছবি নেয় মরিয়মের। এর কিছুদিন পর মরিয়ম তার স্বামী সন্তান নিয়ে গাজীপুর গার্মেন্সে চাকুরিতে চলে যায়।

 

 

এদিকে প্রতারক হানিফ মরিয়মের ছবি ও আইডি কার্ড নিয়ে ভূয়া নোটারি পাবলিকের বিবাহ সনদ তৈরি করে। এবং তা বেগুনবাড়ি এলাকার একাদিক লোককে দিয়ে মরিয়মের নামে মিথ্যা বিয়ের অপবাদ ছড়ায়। একইসাথে মরিয়মের ছবি দিয়ে পোষ্টার ছেপে মিথ্যা তথ্য সম্বলিত অপপ্রচার চালায়। এসব তথ্য সম্পর্কে মরিয়ম অবহিত হয়ে গ্রামে আসলে গ্রামের কিছু লোক তাকে গ্রাম ছাড়ার হুমকি দেয়। মরিয়ম বিষয়টি উল্লেখ করে ২২ ফেব্রুয়ারি কোতোয়ালী থানায় অভিযোগ প্রদান করে।

 

 

মরিয়মের লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ফিরোজ তালুকদার ঘটনাটি তদন্তে এস আই টিটুকে দায়িত্ব দেন। এসআই টিটু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত হয়ে তথ্য প্রযুক্তির মাধ্যমে ২৩ ফেব্রুয়ারি নতুন বাজার এলাকা থেকে হানিফকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদাতলে প্রেরন করে। যার মামলা নং ৮৯ তাং ২২ ফেব্রুয়ারি।

 

 

নারী হয়রানির এ ঘটনাটিকে কেন্দ্র করে ময়মনসিংহ জেলায় ব্যাপক চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। সচেতন মহল অহেতুক নারী হয়রানির এমন ঘটনায় হতবাক হয়ে এর পেছনে মূল ষড়যন্ত্রের কারণ উদঘাটনে পুলিশের সুষ্ঠু তদন্ত দাবি করেছেন।

Print Friendly, PDF & Email
সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন : Share on Facebook
Facebook
0Tweet about this on Twitter
Twitter
Share on LinkedIn
Linkedin

সর্বশেষ খবর



এ বিভাগের অন্যান্য খবর



আমাদের সঙ্গী হোন

যোগাযোগ

বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় –

২২ সি কে ঘোষ রোড, ময়মনসিংহ
বার্তা কক্ষ : ০১৭৩৬ ৫১৪ ৮৭২
ইমেইল : dailyjonomot@gmail.com

© সর্বস্বত্ব স্বাত্বাধিকার দৈনিক জনমত .কম

কারিগরি সহযোগিতায় BDiTZone.com